ঢাকা পাওয়ার ডিস্ট্রিবিউশন
কোম্পানি লিমিটেড (ডিপিডিসি)
ডিপিডিসি
নির্ভরযোগ্য বিদ্যুৎ,উৎফুল্ল গ্রাহক

ডিপিডিসি নতুন যুগের সূচনা: কেনা যাবে ফ্লেক্সিলোডের মতো বিদ্যুৎ




এখন থেকে মোবাইলে ফ্লেক্সিলোডের মতো বিদ্যুৎ কিনতে পারবেন ঢাকার গ্রাহকরা। রবিবার রাজধানীর বিদ্যুৎ ভবনে ডিপিডিসির বোর্ড রুমে গ্রামীনফোনের সঙ্গে এমন একটি চুক্তি করেছে ডিপিডিসি।এর মাধ্যমে ডিজিটাল বিদ্যুৎ ব্যবস্থাপনার আরেক ধাপ পার করলো ঢাকা পাওয়ার ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি (ডিপিডিসি)।

সোমবার থেকে আজিমপুর ও লালবাগ এলাকায় গ্রামীনফোনের দুটি রিটেইলার থেকে এ সুবিধা পাবেন গ্রাহকরা। সরকারি ছুটির দিনসহ সকাল ৯ টা থেকে রাত ১২ টা পর্যন্ত পয়েন্ট অব সেল বা পস মেশিনের সাহায্যে গ্রাহকরা সহজেই কার্ডের মাধ্যমে টাকা রিচার্জ করতে পারবে। এই সুবিধা শুধুমাত্র প্রি-পেইড বিদ্যুৎ গ্রাহকরা পাবেন।

ঢাকার গ্রাহকদের প্রিপেইড মিটারের মাধ্যমে বিদ্যুৎ দিয়ে বাংলাদেশের বিদ্যুৎ ব্যবস্থাপনায় নতুন যুগের সূচনা করেছে ডিপিডিসি। কিন্তু প্রি-পেইড কার্ড রিচার্জ করতে গিয়ে ব্যাংক ও ডিপিডিসির নির্ধারিত বুথে টাকা জমা দিতে লম্বা লাইনে অতিরিক্ত সময় ব্যয় করতে হয় গ্রাহকদের। তাই এখন ফ্লেক্সিলোডের মতো বিদ্যুৎ বেচাকেনার ব্যবস্থা করেছে প্রতিষ্ঠানটি।

চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে ডিপিডিসির ব্যবস্থাপনা পরিচালক প্রকৌশলী বিকাশ দেওয়ান বলেন, প্রধানমন্ত্রীর ভিশন-২০২১- এর আওতায় ডিজিটাল বাংলাদেশ নির্মাণের অংশ হিসেবে ডিপিডিসি’র আওতাধীন সকল এলাকার বিদ্যুৎ গ্রাহকের সেবার মান উন্নয়নে প্রি-পেইড মিটার স্থাপনের কার্যক্রম চলছে। পাশাপাশি নতুন পদ্ধতিতে বিদ্যুৎ বিল পরিশোধের ব্যবস্থা গ্রাহক সেবার আজ নতুন দ্বার উন্মোচন হলো। আগামি দিনেও ডিপিডিসি পক্ষ থেকে গ্রাহক সেবায় আরও কিভাবে সম্পৃক্ত হওয়া যায় সেই প্রচেষ্টা অব্যাহত থাকবে।

অনুষ্ঠানে গ্রামীনফোন ডিপিডিসির কাছ থেকে পাঁচ কোটি টাকার কিনে নেয় বিদ্যুৎ। এরপর গ্রামীণ ফোনের দুই জন ভেন্ডর গ্রামীণ ফোন থেকে ৫০ হাজার টাকার বান্ডেল কেনেন। এ সময় অনুষ্ঠানের অতিথিদের সামনেই দুই জন প্রিপেইড গ্রাহকের কাছে পস মেশিনের মাধ্যমে বিদ্যুৎ বিক্রি করে প্রক্রিয়াটি উপস্থিত অতিথি ও সাংবাদিকদের দেখানো হয়।

ডিপিডিসিতে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, একজন গ্রাহককে একশ থেকে চারশ টাকা পর্যন্ত বিদ্যুৎ কিনতে রিটেইলারকে পাঁচ টাকা বাড়তি দিতে হবে। এভাবে ৫০১ থেকে ১৫০০ টাকার বিদ্যুৎ কিনতে ১০ টাকা, ১৫০১ থেকে পাঁচ হাজার টাকার জন্য ৫৫ টাকা এবং পাঁচ হাজার টাকার উপরে যে কোনো অঙ্কের জন্য ২৫ টাকা বাড়তি দিতে হবে গ্রাহককে।

চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিদ্যুৎ বিভাগের সচিব ও ডিপিডিসির পরিচালনা পর্ষদের চেয়ারম্যান ড. আহমেদ কায়কাউস। তিনি বলেন, সরকারের মূল লক্ষ্য সাধারণ মানুষের হাতের কাছে প্রয়োজনীয় সেবা পৌছেঁ দেওয়া। আজকের এই উদ্যোগের মাধ্যমে ডিজিটাল বাংলাদেশের সেই প্রয়াসে নতুন অধ্যায়ের সূচনা হলো। তাছাড়া এটি রাজধানীবাসীর জন্য ডিপিডিসির নতুন বছরের বিশেষ উপহার।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকা গ্রামীণফোনের চীফ কর্পোরেট এ্যাফেয়ার্স অফিসার এবং ভারপ্রাপ্ত সিইও মাহমুদ হোসেন বলেন, খুবই সীমিত পর্যায়ের সেবা আজ থেকে চালু হলো। আমাদের অনেক রিটেইলার আছেন ঢাকায়। আমরা চাইব ডিপিডিসি যত তাড়াতাড়ি সম্ভব আরও বেশি গ্রামীনফোন রিটেইলারদেরকে এই প্রক্রিয়ায় যুক্ত করে সাধারণ মানুষের বিদ্যুৎসেবা আরও বহুগুণ বাড়িয়ে দেবে।

অনুষ্ঠানে ডিপিডিসি’র পক্ষে চুক্তি স্বাক্ষর করেন কোম্পানি সচিব জয়ন্ত কুমার সিকদার এবং গ্রামীণফোন লিমিটেডের পক্ষে প্রতিষ্ঠানটির হেড অব ফিন্যান্সিয়াল সার্ভিসেস রাশেদা সুলতানা। অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন ডিপিডিসির পরিচালক অপারেশন হারুন অর রশীদ, ডিপিডিসির পরিচালক প্রকৌশল মো: রমিজ উদ্দিন সরকার, ডিপিডিসির পরিচালক প্রশাসন আবু তাজ মো: জাকির হোসেন এনডিসি ও ডিপিডিসির পরিচালক অর্থ মো: গোলাম মোস্তফা ।

অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন ডিজিএম এইচ আর মো: শামীমুল হক। এ সময় দুই প্রতিষ্ঠানের শীর্ষস্থানীয় কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।
প্রতিবেদক/জিএম/ফোকাস বাংলা/১৬৫৫ ঘ.
- আবদুল গণি/ফোকাস বাংলা নিউজ

আপনার বিদ্যুৎ বিল দেখুন
শ্রেষ্ঠ স্টল
ডিজিটাল ওয়ার্ল্ড ২০১৬ সালে 'শ্রেষ্ঠ স্টল'
শ্রেষ্ঠ স্টল
বিদ্যুৎ মেলা ২০১৪ সালে 'শ্রেষ্ঠ স্টল'
মেয়র হানিফ ফ্লাইওভারের ইলেকট্রিক লাইনের রুট পরিবর্তন
গুলিস্তান-যাত্রাবাড়ী মেয়র হানিফ ফ্লাইওভারের ইলেকট্রিক লাইনের রুট পরিবর্তন করা
সেরা কর্পোরেট অ্যাওয়ার্ড
আইসিএমএবি শ্রেষ্ঠ কর্পোরেট অ্যাওয়ার্ড ২০১২
ইভেন্ট ক্যালেন্ডার